আপনি খুজতে খুজতে এই পর্যন্ত চলে আসছেন?? এর মানে হচ্ছে আপনি এখন অবধি বয়া এম-১(Boya M1 Microphone) মাইক্রোফোনটা নিবেন কিনা ঠিক করতে পারেন নাই।

তবে আমি এতটুকু বলতে পারি, এই রিভিউটা পড়ার পর আপনার মনে যে প্রশ্নগুলো আছে যেমন, বয়া এম-১ মাইক্রোফোনটা কেমন হবে? এটা মোবাইলের সাথে, ল্যাপটপ/কম্পিউটারের সাথে, ডিএসএলআর এর সাথে, ক্যামেরার সাথে ব্যবহার করা যাবে কিনা? আবার বয়া এম-১ এর দাম কত? কত বছর টিকবে? কোয়ালিটি কেমন? নয়েজ ক্যানসেলেশন সুবিধা আছে কিনা? দামের তুলনায় ভালো হবে তো? এই সকল প্রশ্নের উত্তরসহ আরো অনেক ধরনের বাস্তবধর্মী পরীক্ষার ফলও আপনি এই রিভিউটাতে পাবেন। সাথে সাথে এই বয়া এম-১ মাইক্রোফোনটা কিনবেন কিনা সেটার ডিসিশনও সুন্দরভাবে নিতে পারবেন।

Boya BY M1 Bangla Review and Price in Bangladesh

প্রথমে একটা সুন্দর ইন্ট্রো দিয়ে শুরু করি, বিশ্বের উল্লেখযোগ্য কিছু লেভেলিয়ার মাইক্রোফোনের যদি একটা তালিকা তৈরি করা হয় তাহলে তার মধ্যে বয়া এম-১ মাইক্রোফোনটা থাকবে। কারণ যারা প্রাথমিক অবস্থায় ভয়েস রেকর্ডিং এর জন্য এক্সটারনাল মাইক ইউজ করে তাদের বেস্ট চয়েজ হচ্ছে বয়া বাই এম-১ মাইক্রোফোনটা।

বুঝতে পারছি আপনার এখন খুব জানতে ইচ্ছা করছে কেন এই মাইকটা এতটা জনপ্রিয়?কি আছে এর মধ্যে? হুম, এবার সেটাই বলবো।

কেন বয়া এম-১ মাইক্রোফোনটা সবাই এতো পছন্দ করে?

এক কথায় যদি উত্তর দিতে যায় তাহলে বলতে হবে, বাংলাদেশে ভয়েজ রেকর্ডিং এর ক্ষেত্রে যত লেভেলিয়ার মাইক ব্যবহার করা হয় এর মধ্যে বয়া এম ১ এর সাউন্ড কোয়ালিটি সবচেয়ে ভালো আবার দামেও অনেক সস্তা । আর যেটার সাউন্ড কোয়ালিটি সবচেয়ে ভালো আবার দামেও সস্তা সেটাই তো সবাই চাইবে আর পছন্দও করবে এটাই স্বাভাবিক। আমরা বাংলাদেশীরা এটাই তো চায়, দাম কম জিনিস ভালো।

boya m1 microphone
Boya M1

বয়া এম-১ মাইক্রোফোনের ফিচার কি কি? (Boya M1 Microphone Features)

  • বয়াতে ৩.৫ মিমি জ্যাক থাকায় এটা আপনার স্মার্টফোন,ক্যামেরা,কম্পিউটার,ল্যাপটপ সহ সকল অডিও রেকর্ডারে ব্যবহার করতে পারবেন।
  • এই মাইক্রোফোনটার পোলার প্যাটার্ন অমনিডিরেকশনাল অর্থাৎ আপনার কথাগুলো সব ডিরেকশন থেকে সমান গেইনে রেকর্ড করতে পারবে।
  • বয়া এম-১ এ বিল্ট ইন নয়েজ ক্যানসেলেশন সুবিধা দেওয়া আছে,এতে করে এটার সাউন্ড কোয়ালিটি অনেক হাই হয়ে থাকে এবং আশে পাশের নয়েজ খুব একটা ক্যাচ করেনা।
  • এই মাক্রোফোনটাকে আপনি একটা ল্যাপেল ক্লিপের সাহায্যে কাপড়ে লাগিয়ে, বা অন্য কোথায় লাগিয়ে ব্যবহার করতে পারবেন।
  • এটাতে অনেক বড়, প্রায় ৬ মিটার লম্বা ওয়ার থাকায় অনেক দূর থেকেও রেকর্ড করা সম্ভব হয়।
  • মাইক্রোফোনটাতে এলআর-৪৪ ব্যাটারী সংযুক্ত আছে, সাথে আছে একটা ফোম উন্ডস্ক্রিন। ব্যাটারীটা ভালোই ব্যাকাপ দিবে(১ মাস+)। আর ফোমটা নয়েজ ক্যান্সেল করতে সাহায্য করবে।
  • ১/৪” এর একটা এডাপ্টারও রয়েছে এটার সাথে। অন্যান্য সাপোর্টেড ডিভাইসে আপনি এটা দিয়ে রেকর্ড করতে পারবেন।

বয়া এম-১ এর ফুল স্পেসিফিকেশন(Boya M1 Full Specification)

  • ব্রান্ডঃ বয়া(BOYA)
  • মডেল নাম্বারঃ Boya BY-M1
  • পোলার প্যাটার্নঃ Omnidirectional
  • ফ্রিকোয়েন্সি রেঞ্জঃ 65Hz ~ 18 KHz
  • নয়েজঃ 74dB SPL
  • সেন্সিটিভিটিঃ -30dB +/- 3dB / 0dB=1V/Pa, 1 kHz
  • আউটপুট ইমঃ 1000 Ohm or less
  • কানেক্টরঃ 3.5mm (1/8”) 4-pole gold plug
  • এক্সেসরিজঃ lapel clip, LR44 battery, foam windscreen, 1/4” adapter
  • ব্যাটারী টাইপ: LR44
  • ডাইমেনশন: Microphone: 18.00mmH x 8.30mmW x 8.30mmD
  • ক্যাবলের দৈর্ঘ্যঃ 6.0m
  • ওজনঃ 2.5g
  • পাওয়ার মডিউলঃ 18g

বয়া এম-১ সম্পর্কিত কিছু প্রশ্ন ও উত্তর (FAQ for Boya M1 Microphone)

বয়া মাইকটা কেমন ?

অডিও রেকর্ডং এর জন্য বয়া মাইকটা অসম্ভব ভালো।

বয়া মাইকটা কি আমি ফোনে, ক্যামেরায়, কম্পিউটারে ও ল্যাপটপে ব্যবহার করতে পারবো?

জি অবশ্যই পারবেন।

বয়া মাইক্রোফোনটা কি গান রেকর্ডিং এ ব্যবহার করা যাবে?

এর সাথে আপনি ছয় মিটার লম্বা ক্যাবল পাবেন এবং অসম্ভব ভালো সাউন্ড কোয়ালিটি। এটা তাই গান রেকর্ডিং এর জন্য একদম উপযুক্ত হবে।

এর ব্যাটারী কেমন ব্যাকাপ দিবে?

বয়া এম ১ এর ব্যাটারী ব্যাকাপ আপনি ১-১.৫ মাসের মত পাবেন।

মাওনো নাকি বয়া? কোনটা ভালো হবে?

নিঃসন্দেহে বয়া বাই এম ১ মাইক্রোফোনটা ভালো হবে। কারন অনেক সুযোগ সুবিধা থাকলেও মাওনোর থেকে বয়ার সাউন্ড কোয়ালিটি অনেক ভালো।

বয়া এম-১ ব্যবহারকারীদের মতামত(What Users Say About Boya)

যারা বয়া এম-১ মাইকটা ব্যবহার করেছেন তাদের মধ্যে ৯২% লোক এটা ব্যবহার করে সন্তুষ। আমরা বাংলাদেশ সহ বিভিন্ন দেশের ইকমার্স প্ল্যাটফর্মের ইউজার রিভিউ বিশ্লেষন করেই এমন ডাটা পেয়েছি।

তবে অনেকেই এটার ব্যাটারী ব্যাকাপ নিয়ে প্রশ্ন তুলেছেন এবং বলেছেন এটা রিচার্জেবল হলে আরো ভালো হতো। বার বার ব্যাটারী পাল্টাতে হতো না। তবে অধিকাংশই এর সাউন্ড কোয়ালিটির প্রশংসা করেছেন।

বয়া এম-১ এর দাম কত?(Boya M1 Microphone Price in BD)

 এতসব ফিচার এবং এত গুনো গান শুনে আপনারা ভাবতে পারেন এই মাইক্রোফোন তার দাম হয়তো আকাশচুম্বী। আসলে কিন্তু সেটা নয়, এই মাইক্রোফোনের কার্যকারিতা হিসাবে  এটার দাম খুবই কম।

 বয়া m1 মাইক্রোফোনের দাম বিভিন্ন অনলাইন স্টরে বিভিন্ন রকম দেখতে পাবেন। তবে  বিডিশপ থেকে যদি আপনি  মাইক্রোফোনটা কিনেন তাহলে আপনি 100% অরিজিনাল প্রোডাক্ট পাবেন। আবার দারাজ থেকেও কিনতে পারেন। তবে কেনার আগে তাদের রিভিউগুলো পড়ে নেওয়া ভালো। যেখান থেকেই আপনারা প্রডাক্ট কিনেন না কেনো সবসময় অরিজিন্যাল প্রোডাক্ট কেনার চেষ্টা করবেন।

 এখন এটার মূল্য কত সেটা এভাবে বলা কঠিন কারন প্রতিনিয়ত দাম উঠানামা করছে । তবে মাইক্রোফোনটার মূল্য ৯০০-১০০০ টাকার মধ্যে থাকবে বলে আশা করছি। এখন এটার মূল্য কত সেটা শপগুলোতে খোজ নিলেই আপনি জেনে যাবেন। কমেন্টে আমাকেও জানিয়ে দিতে পারেন। তাহলে আমার সাথে সাথে অন্যরাও জেনে যাবে।

যাদের বাজেট এর থেকেও কম কিন্তু সাউন্ড কোয়ালিটি অনেক ভালো এমন মাইক্রোফোন খুজছেন তারা এই মাওনো এইউ-১০০ মাইক্রোফনের রিভিউটা দেখতে পারেন।

I hope you got all the information regarding Boya by m1 Microphone. I try to give you the best review in bangla of Boya m1. I also mention boya m1 price in bd in that review. There is a comparison between Maono AU 100 and Boya by m1 also. I hope you guys like it very much.

আমাদের অফিসিয়াল রেটিং
Overall
4.7
  • সাউন্ড কোয়ালিটি
  • বিল্ট কোয়ালিটি
  • ব্যাটারি
  • ক্যাবল
  • দাম

আমাদের সর্বশেষ মতামত

আপনারা যদি অডিও বা ভিডিও রেকর্ডিং এর জন্য কোন লেভলিয়ার মাইক্রোফোন কিনতে চান তাহলে অবশ্যই আমি বলব আপনার প্রথম পছন্দ বয়া এম-১ হওয়া উচিত। কারণ আমার এটা বাংলাদেশে এখন অব্দি বাজেট ফ্রেন্ডলি এবং সবচেয়ে ভালো সাউন্ড কোয়ালিটির মাইক্রোফোন।

Pros

  • মাইক্রোফোনটার সবচেয়ে ভালো দিক হচ্ছে এর সাউন্ড কোয়ালিটি। এর সাউন্ড কোয়ালিটি অসাধারন।
  • তারপর যেটা আছে সেটা হচ্ছে বিল্ড কোয়ালিটি।
  • নয়েজ ক্যান্সলেশন এ এটা সব মাইক্রোফোনের ঊর্ধ্বে।
  • এই মাইক্রোফোন টা হাতে নিলে একটা  প্রিমিয়াম ফিল পাওয়া যায়।
  • মাইক্রোফোন তার সাথে থাকা তারটা অনেক লম্বা হয় দূর থেকেও রেকর্ড করা যায়।
  • এর দাম অন্য মাইক্রোফোন গুলো বিবেচনা করলে অনেক কম।

Cons

  • এটাতে সুইচিং অপশন থাকায় মোবাইল ফোন এবং পিসিতে ব্যবহার করার সময় বাটনে ক্লিক করতে হয় যেটা খুবই বিরক্তিকর।
  • মোবাইলে বহুল ব্যবহৃত যে ক্যামেরা অ্যাপটি আছে যার নাম হচ্ছে ওপেন ক্যামেরা এই অ্যাপটিতে বয়া m1 মাইক্রোফোনটা অনেক সময় কাজ করতে চাইনা। 
    • এর বিপুল চাহিদার কারণে নকল একটা ভার্সন বের হয়েছে। এতে করে কোনটা আসল কোনটা নকল সেটা বোঝা দায়।কারণ এটা লোকাল মার্কেটে খুব একটা পাওয়া যায় না তাই অধিকাংশ মানুষই অনলাইন থেকে এটা কিনে।

    Give a Comment